Logo

পরবর্তী ১২ বছরে তাপমাত্রা বাড়বে দেড় ডিগ্রি সেলসিয়াস

পরবর্তী ১২ বছরে তাপমাত্রা বাড়বে দেড় ডিগ্রি সেলসিয়াস

বৈশ্বিক উষ্ণতার বর্তমান হার অব্যাহত থাকলে ২০৩০ সাল নাগাদ পৃথিবীর তাপমাত্রা ১ দশমিক ৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস বাড়বে। সোমবার জাতিসংঘের এক প্রতিবেদনে এই সতর্কতা জারি করা হয়।

প্রতিবেদনটিতে বলা হয়, এখনও পর্যন্ত তাপমাত্রা কমাতে কার্যকর কোনও পদক্ষেপ নিতে পারেনি বিশ্বনেতারা। খবর আলজাজিরার।

প্রতিটি দেশের সরকার ২০১৫ সালের প্যারিস চুক্তি কীভাবে বাস্তবায়ন করবে তার একটি বৈজ্ঞানিক গাইডলাইন হিসেবে দেখা হচ্ছে জাতিসংঘের এই প্রতিবেদনকে। প্যারিস চুক্তির মাধ্যমে বৈশ্বিক গড় তাপমাত্রা ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস কমানোর লক্ষ্য নির্ধারিত হয়েছে। এরপর ২ ডিগ্রি থেকে কমিয়ে এটা ১ দশমিক ৫ ডিগ্রিতে নামিয়ে আনা হয়েছে। গত সপ্তাহে দক্ষিণ কোরিয়ায় এক সম্মেলনে এটা নির্ধারিত হয়।

নতুন লক্ষ্য নির্ধারণকারী প্যানেল বলছে, বৈশ্বিক উষ্ণতা বৃদ্ধি ১ দশমিক ৫ ডিগ্রিতে সীমিত রাখতে সমাজের সব স্তরে ব্যাপক পরিবর্তন নিয়ে আসতে হবে। তারা সতর্ক করে বলেন, বর্তমান তাপমাত্রা বৃদ্ধির হার অব্যাহত থাকলে ২০৩০ থেকে ২০৫২ সালের মধ্যে তাপমাত্রা দেড় ডিগ্রি সেলসিয়াস পর্যন্ত বাড়বে।

জাতিসংঘ প্রতিবেদনে নীতি নির্ধারকদের উদ্দেশে বলা হয়, দ্রুততার সাথে জীবাশ্ম জ্বালানীর ওপর ভুর্তকি তুলে দিতে হবে। পাশাপাশি নবায়নযোগ্য শক্তি ও পরিবেশ সহায়ক প্রযুক্তি ব্যবহার করতে হবে।

এ সম্পর্কে আন্তর্জাতিক বেসরকারি সংস্থা ‘দ্য এলডার্সের’ ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান গ্রো হারম্যান ব্রান্ডল্যান্ড বলেন, এটা সাধারণ সতর্কতা নয় বরং এটা একটি টাইম-বোমা যা সময়ের দিকে এগিয়ে যাচ্ছে। পরিবেশবাদীরা কয়েক দশক ধরে বিশ্বনেতাদের প্রয়োজনীয় দায়িত্ব ও পদক্ষেপ নেওয়ার জন্য অনুরোধ করছেন। কিন্তু যা করার দরকার, তা এখনও পর্যন্ত করা হচ্ছে না। এরপরেও কিছু না পারলে এটা আমাদের বাসভূমি এবং আগামী প্রজন্মের জন্য বেশ বিপদজনক হবে।