Logo

আবারও জরিমানার মুখোমুখি সাকিব

আবারও জরিমানার মুখোমুখি সাকিব

 আবারও জরিমানা দিতে হচ্ছে সাকিব আল হাসানকে। ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে প্রথম টি-টোয়েন্টির পর দ্বিতীয় ম্যাচেও জরিমানা করা হলো বাংলাদেশ দলের অধিনায়ককে। প্রথম ম্যাচে আম্পায়ারের সিদ্ধান্তে দ্বিমত পোষণ করায় সাকিবের ম্যাচ ফি-এর ১৫ শতাংশ কেটে নেয়া হয়। দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিতে স্লো ওভার রেটের কারণে জরিমানা গুনতে হচ্ছে টাইগারদের। শুধু বাংলাদেশ দলকেই নয়, নির্ধারিত সময়ের মধ্যে খেলা শেষ করতে না পারায় জরিমানা দিতে হচ্ছে ক্যারিবীয়দেরও। বৃহস্পতিবার মিরপুর শেরেবাংলা জাতীয় ক্রিকেট স্টেডিয়ামের দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টিত সাকিব আল হাসানের অলরাউন্ড নৈপুণ্যে ৩৬ রানের জয়ে সিরিজে ফেরে বাংলাদেশ। জয়ের ম্যাচে স্লো ওভার রেটের জন্য জরিমানা গুনতে হচ্ছে উইন্ডিজ ও বাংলাদেশ উভয় দলকে। তবে জরিমানার মাত্রাটা বেশি ভোগ করতে হচ্ছে সফরকারীদের।

নির্ধারিত সময়ে বাংলাদেশ পিছিয়ে ছিল ১ ওভারে। অন্যদিকে সফরকারীরা পিছিয়ে ছিল ২ ওভারে। যার ফলে উভয় দলকেই দিতে হচ্ছে এ জরিমানা। আইসিসির ২.২২.১ অনুচ্ছেদ অনুযায়ী নির্ধারিত সময়ের মধ্যে ইনিংস শেষ করতে না পারায়, প্রতি ওভারের জন্য অধিনায়ককে তার ম্যাচ ফির ২০ শতাংশ। এবং বাকি সদস্যদের ১০ শতাংশ জরিমানা করার বিধান রয়েছে। সে নিয়মানুসারে সাকিবকে ম্যাচফি-এর ২০ শতাংশ এবং বাকিদের ১০ শতাংশ করে জরিমানা করা হয়। অন্যদিকে উইন্ডিজ ক্রিকেট দল নির্ধারিত সময়ের পর দুই ওভার বোলিং করায় ক্যারিবীয়ান অধিনায়ক কার্লোস ব্র্যাথওয়েটকে ম্যাচ ফি-এর ৪০ শতাংশ ও দলের বাকি সদস্যদের ২০ শতাংশ জরিমানা করেছে আইসিসি। তবে উভয় দলের অধিনায়ক নিজেদের বিরুদ্ধে আনা অভিযোগ মেনে নিলে আনুষ্ঠানিক কোনো শুনানির প্রয়োজন হয়নি। শনিবার সিরিজ নির্ধারণী তৃতীয় ও শেষ টি-টোয়েন্টি ম্যাচে মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ-উইন্ডিজ।